24.8 C
Guwahati
Thursday, October 14, 2021
More

    মেডিক্যাল থেকে পালিয়ে গেল করোনা রোগী, পরে শ্বশুরবাড়ি থেকে আটক

    শিলচর, ১১ মে : শিলচর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এক করোনা রোগী চুপিসারে পালিয়ে গিয়েছিলেন। স্বপন কুমার পাল নামে করিমগঞ্জের বাসিন্দা বছর ৫৫-র ওই রোগীকে পরে পুলিশ দিয়ে ভাঙ্গার শ্বশুরবাড়ি থেকে ধরে আনা হয়েছে। কিন্তু তার পলায়ন পর্বকে ঘিরে সৃষ্টি হয়েছে উৎকণ্ঠার। তিনি কাদের সংস্পর্শে এসেছেন, এর মধ্যে কেউ কি তার মারফত সংক্রমিত হয়েছেন, এ নিয়ে স্বাস্থ্য বিভাগের কর্তাদের চিন্তার শেষ নেই। যদিও প্রকাশ্যে এনিয়ে কেউই মুখ খুলতে চাইছেন না।

    জানা গেছে, রবিবার ভোরে শৌচাগারে যাওয়ার কথা বলে কোভিড আইসিইউতে চিকিৎসাধীন স্বপন কুমার পাল চুপিসারে বেরিয়ে যান মেডিক্যাল থেকে। মেডিক্যালের গেটের বাইরে গিয়ে বাড়ির লোকেদের সঙ্গে ফোনে যোগাযোগ করে তাকে নিয়ে যেতে বলেন। খবর পেয়ে বাড়ির লোকেরা দ্রুত ছুটে আসেন শিলচরে। মেডিক্যালের গেটের সামনে পৌঁছে তারা একটি চায়ের দোকানে বসে কথাবার্তা বলে তাকে নানা ভাবে বুঝিয়ে ওয়ার্ডে ফেরত পাঠানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু স্বপন ওয়ার্ডে ফিরে যেতে রাজি ছিলেন না। তিনি বাহানা করে বাড়ির লোকেদেরও ফাঁকি দিয়ে সরে পড়েন সেখান থেকে।

    এদিকে স্বপন পালিয়ে যাওয়ার ব্যাপারটা বুঝতে পেরে মেডিক্যালে শুরু হয় দৌড়ঝাঁপ। খবর দেওয়া হয় পুলিশকে। যেহেতু করিমগঞ্জের বাসিন্দা, তাই স্বপন যেতে পারেন করিমগঞ্জের কোথাও, এমনটা অনুমান করে খবর দেওয়া হয় করিমগঞ্জ পুলিশকে। করিমগঞ্জ পুলিশ খোঁজখবর করে দুপুরের দিকে জানতে পারে স্বপন রয়েছেন সে জেলার ভাঙ্গায় তার শ্বশুরবাড়িতে। সঙ্গে সঙ্গে তাকে সেখান থেকে আটক করে নিয়ে যাওয়া হয় করিমগঞ্জ হাসপাতালে। যদিও সে সময় স্বপনের শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা অনেকটা কম থাকায় করিমগঞ্জ হাসপাতালের চিকিৎসকরা তাকে রাখতে রাজি হননি। ফের পাঠিয়ে দেওয়া হয় শিলচর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে। বর্তমানে স্বপন চিকিৎসাধীন রয়েছেন মেডিক্যালে।

    আরো দেখুন : কোভিড পজিটিভ মহিলাকে ধর্ষণের ঘটনায় ধৃত তিন, তবে সবাই নেগেটিভ

    Published:

    Follow TIME8.IN on TWITTER, INSTAGRAM, FACEBOOK and on YOUTUBE to stay in the know with what’s happening in the world around you – in real time

    First published

    ট্ৰেণ্ডিং