34 C
Guwahati
Friday, September 30, 2022
More

    ভোটে অন্তর্ঘাত : বিজেপির কাঠগড়ায় প্রাক্তন বিধায়ক কিশোর নাথ ও অমরচান্দ জৈন!

    ভোটে অন্তর্ঘাত : বিজেপির কাঠগড়ায় প্রাক্তন বিধায়ক কিশোর নাথ ও অমরচান্দ জৈন!

    শিলচর, ১৭ মে : নির্বাচনী ফলাফলকে ঘিরে বিজেপির জেলা ও মন্ডল স্তরের কিছু নেতার উপর কোপ পড়তে চলেছে বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন দলের রাজ্য সভাপতি রঞ্জিত দাস। সেই সূত্র ধরে কাছাড় বিজেপিতে শুরু হয়েছে কিছু কর্মকর্তার নাম নিয়ে আলোচনা। জানা গেছে, জেলায় যাদের নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে তাদের সবার আগে নাম রয়েছে বড়খলা ও কাটিগড়ার দুই প্রাক্তন বিধায়ক কিশোর নাথ ও অমরচাঁদ জৈনের। এছাড়া বড়খলার শালচাপরা এবং বড়খলা মন্ডলের দুই সভাপতির নামও রয়েছে আলোচনায়।

    দলীয় এক সূত্রের খবর অনুযায়ী, টিকিট বঞ্চিত হয়ে কিশোর নাথ ও অমর চাঁদ জৈন নির্বাচনের সময় দলের প্রার্থীদের সঙ্গে কোনও ধরনের সহযোগিতা না করে উল্টো পন্থা নিয়েছিলেন বলে অভিযোগ রয়েছে। কিশোর নাথতো  বড়খলায় দলীয় প্রার্থী অমলেন্দু দাস- এর সমর্থনে আয়োজিত উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের সভাও এড়িয়ে যান। সূত্রটি জানান, সে সময় কিশোর বলেছিলেন তিনি করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। কিন্তু  দেখা যায়  ২৩ মার্চ আদিত্যনাথের সভায় যোগ না দিলেও তিনি ব্যক্তিগত কাজে অবাধে মেলামেশা করছেন লোকজনের সঙ্গে। এছাড়া দুদিন পর ২৫ মার্চ  আরএসএস কর্মকর্তা গৌরী শংকর চক্রবর্তীর মরদেহে মাল্যদান করতেও গিয়েছিলেন তিনি । তখন তাকে করোনা আক্রান্ত হওয়া নিয়ে জিজ্ঞেস করা হলে তিনি কোনও যুক্তিসঙ্গত উত্তর দিতে পারেননি। এতেই স্পষ্ট হয়ে যায় করোণায় আক্রান্ত হওয়ার মিথ্যা বাহানা দেখিয়ে তিনি এড়িয়ে গিয়েছিলেন আদিত্যনাথের সভা। একথা জানিয়ে সূত্রটি বলেন, দলের টিকিটে বিধায়ক হওয়া একজন লোকের এমন আচরণ আশা করা যায় না কোনও অবস্থাই।

    এছাড়া  বড়খলা মন্ডলের সভাপতি অরিন্দম নাথ এবং শালচাপরা মন্ডলের সভাপতি পীযূষ পালের বিরুদ্ধেও রয়েছে বিস্তর অভিযোগ। অভিযোগ অনুযায়ী দুজনেই নির্বাচনের সময় দলীয় প্রার্থীর পক্ষে সক্রিয় না হয়ে উল্টে তাদের অনুগামীদের দিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় কিশোর নাথের কাজকর্ম নিয়ে ব্যাপক হারে প্রচার চালিয়েছেন। দলীয় সূত্রটির কথায়, সোশ্যাল মিডিয়ায় এভাবে প্রচার চালিয়ে পরোক্ষে প্রার্থী অমলেন্দু দাসের বিরুদ্ধে জনমত সৃষ্টির চেষ্টা চালানো হয়েছে। যত কারসাজি করেই এসব খেলা চালানো হোক না কেন, দলীয় নেতৃত্বের নজর এড়ায়নি কিছুই।

    এদিকে কিশোর নাথ ও অমর চাঁদ জৈনের বিরুদ্ধে উত্থাপিত অভিযোগ নিয়ে দলের ভারপ্রাপ্ত জেলা সভাপতি বিমলেন্দু রায়কে জিজ্ঞেস করলে তিনি এ নিয়ে কিছু বলতে অস্বীকার করেন। বিমলেন্দুবাবু বলেন, তাকে কেউ কিছু জানাননি। আর প্রাক্তন বিধায়ক দের ব্যাপারটা দেখার এক্তিয়ারও নেই তার। এসব রাজ্য কমিটির ব্যাপার। 

    আরো দেখুন : উচ্চ মাধ্যমিক টেট পরীক্ষার ফল এ সপ্তাহেই : শিক্ষামন্ত্রী পেগু

    Published:

    Follow TIME8.IN on TWITTER, INSTAGRAM, FACEBOOK and on YOUTUBE to stay in the know with what’s happening in the world around you – in real time

    First published

    ট্ৰেণ্ডিং