22 C
Guwahati
Wednesday, October 27, 2021
More

    এনআরসি ইস্যুতে বিজেপির অবস্থান নিয়ে ফের সরব সুস্মিতা

    শিলচর, ১৬ জানুয়ারি: এনআরসি ইস্যুতে বিজেপির অবস্থান নিয়ে ফের সরব হলেন সুস্মিতা দেব। শিলচরের প্রাক্তন সাংসদ সর্বভারতীয় মহিলা কংগ্রেসের সভানেত্রী সুস্মিতা দেবের কথায়, বরাকের উপর পাঁচটি সেতু তৈরি নিয়ে বিজেপি নেতাদের প্রতিশ্রুতি যেমন অবান্তর, তেমনই অবান্তর এনআরসিতে সব বাঙালি হিন্দুর নাম অন্তর্ভুক্তির প্রতিশ্রুতিও। সঙ্গে বাঙালি হিন্দুদের প্রতি তাঁর সতর্কবাণী, বিজেপিকে ভোট দিয়ে জেতানোর মানেই এনআরসির নথিপত্র যাচাইয়ের নামে হয়রানিকে ফের ডেকে আনা।

    এনআরসি ইস্যুতে বিজেপির অবস্থান নিয়ে ফের সরব সুস্মিতা

    ‘বিজেপি রাজ্যে ফের ক্ষমতায় এলে নতুন করে তৈরি করা হবে এনআরসি। আর নতুন এনআরসিতে অন্তর্ভুক্ত হবে বাঙালি হিন্দুদের সবার নাম।’ গত ১১ জানুয়ারি শিলচর পুলিশ প্যারেড গ্রাউন্ডে বিজেপির জাতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডার নির্বাচনী সভায় এমন মন্তব্য করেছিলেন ওই দলের সাংসদ দিলীপকুমার শইকীয়া। সাংসদ শইকিয়ার বক্তব্যের সূত্র ধরে শিলচর জেলা কংগ্রেস ভবনে এক সাংবাদিক সম্মেলনে সুস্মিতা বলেন, বরাকের উপর পাঁচটি সেতু তৈরি হবে বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন বিজেপি নেতারা। কিন্তু সেই প্রতিশ্রুতির কি হয়েছে, তা দেখতে পাচ্ছেন সবাই। তেমনি এনআরসিতে বাঙালি হিন্দুদের কারও নাম বাদ যাবে না বলে দিলীপ শইকিয়া যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন, এর পরিণতিও হবে একই। এনআরসি তৈরির দায়িত্বে থাকবেন না দিলীপ শইকীয়া বা হিমন্তবিশ্ব শর্মারা। এভাবে কোনও বিশেষ গোষ্ঠীর কারও নাম বাদ পড়বে না বলাটা মোটেই যুক্তিসংগত বা বিশ্বাসযোগ্য নয়। খোদ এনআরসির সমন্বয়কও বলতে পারবেন না তা। তবে এটা ঠিক, বিজেপি ফের ক্ষমতায় এলে নতুন করে তৈরি করা হবে এনআরসি, যা স্পষ্ট করে দিয়েছেন দিলীপ শইকীয়া। আর বিজেপিকে ভোট দিয়ে ফের ক্ষমতায় আনলে বাঙালিদের আরও এক দফা এনআরসির নথিপত্র পরীক্ষার নামে হয়রানির জন্য তৈরি থাকতে হবে।

    সুস্মিতা বলেন, এনআরসি নিয়ে সরকারিভাবে এ পর্যন্ত স্পষ্ট করে কিছুই বলেনি বিজেপি সরকার। এনআরসি বৈধ না অবৈধ, কোনও কথা বলছেন না বিজেপি নেতারা। আসলে বিজেপি নেতারা জানেন, এনআরসির কোনও সমাধানের রাস্তা তাদের কাছে নেই। তাই সরকার রয়েছে নিশ্চুপ হয়ে, আর দলের নেতৃবৃন্দ বেসরকারি স্তরে দিয়ে চলেছেন নানা উল্টোপাল্টা প্রতিশ্রুতি। ১১ জানুয়ারি পুলিশ প্যারেড গ্রাউন্ডের সভায় বিজেপির জাতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা যেভাবে অসম আন্দোলনে বিজেপির সমর্থন  ছিল বলে মন্তব্য করেছেন, এনিয়েও এদিন পাল্টা সুর চড়ান সুস্মিতা। তিনি বলেন, অসম আন্দোলন ছিল বাঙালি বিরোধী আন্দোলন। বরাক উপত্যকায় সেই আন্দোলনের কোনও প্রভাব পড়েনি কোনদিনও। অথচ নাড্ডা বরাকের কেন্দ্রস্থল শিলচরে এসে জয়গান গেয়ে গেলেন সেই আন্দোলনের। এ থেকে এটা স্পষ্ট হয়ে উঠেছে, নাড্ডা বরাকের আবেগ সম্পর্কে অবহিত নন বা বুঝেনই না। তিনি আরও বলেন, বিজেপি রাজ্যে ক্ষমতায় আসার পর থেকেই বাঙালিদের আবেগ ও অস্তিত্বের উপর একের পর এক আঘাত আসছে। ১৯ মে ভাষা শহিদ দিবসের দিন পরীক্ষা আয়োজনের সিদ্ধান্ত এর এক নিদর্শন। সাংবাদিক সম্মেলনে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন প্রাক্তন মন্ত্রী অজিত সিংহ, দলের জেলা সভাপতি প্রদীপকুমার দে, অমিতাভ সেন ও জ্যোতিরিন্দ্র দে। 

    আরো দেখুন : ফের দুঃসাহসিক ডাকাতি, বন্দুকের নলের মুখে লুট টাকা-স্বর্ণালঙ্কার

    Published:

    Follow TIME8.IN on TWITTER, INSTAGRAM, FACEBOOK and on YOUTUBE to stay in the know with what’s happening in the world around you – in real time

    First published

    ট্ৰেণ্ডিং